বাংলা ফন্ট

চিঠি-হীন যুগে ডাক বিভাগের টিকে থাকার অভিনব চেষ্টা

17-04-2017
নিজস্ব প্রতিবেদক ঢাকারিপোর্টটোয়েন্টিফোর.কম

 চিঠি-হীন যুগে ডাক বিভাগের টিকে থাকার অভিনব চেষ্টা

নিউজ ডেস্ক: রিকি লেকেইনস গত আটত্রিশ বছর ধরে ব্রিটেনের জার্সি শহরে ডাক হরকরার কাজ করেন। কিন্তু গত কিছুদিন ধরে তিনি ভিন্ন ধরনের এক ডাক সেবা দিচ্ছেন। শহরের যেসব বৃদ্ধ-বৃদ্ধারা একাকী বসবাস করেন, তাদের দরোজায় গিয়ে কড়া নাড়েন রিকি। তাদের খোঁজখবর নেন, ঠিকঠাক আছে কিনা দেখেন, কিছু লাগবে কিনা, জানতে চান।

জার্সি পোস্ট এটাকে বলছে 'কল অ্যান্ড চেক'। কাজটি খুব অল্প সময়ের কিন্তু কার্যকরী।

এদের যদি কোন ওষুধপত্র লাগে কিংবা বাজার করানোর প্রয়োজন হয়, সেজন্য অবশ্য বিভিন্ন দাতব্য সংস্থা এবং অনলাইন কেনাকাটার সুযোগ আছে, কিন্তু রিকির এই সংক্ষিপ্ত সামাজিকতাটুকু এমি ম্যাথুসের মতো নিস:ঙ্গ বৃদ্ধার দারুণ উপকার করে।

মিসেস ম্যাথুস বলছেন, "এটা যেনে আমি নিশ্চয়তাটুকু পাই যে আমাকে একা ফেলে যাওয়া হয়নি, ভুলে যাওয়া হয়নি। কেউ একজন আছেন, যিনি আমাকে নিয়ে ভাবেন। এটা সত্যিই অসাধারণ একটি ব্যাপার"।

রিকি বলছেন, এই সংক্ষিপ্ত আলাপচারিতাগুলো উপভোগ করেন এবং তার মতে তিনি এভাবে একটি পরিবর্তন আনছেন।

প্রথম পর্যায়ে পরীক্ষামূলকভাবে এরকম কুড়ি হাজারের মতো কল অ্যান্ড চেক সেবা দিয়েছে জার্সি পোস্ট।

এখন পর্যন্ত বিনামূল্যে, কিন্তু শীঘ্রই তারা এ বাবদে পয়সা নিতে শুরু করবে।

আর তাদেরকে এই মূল্য পরিশোধ করবে জার্সির সরকার।

কখনো কখনো দুই মিনিটের এই সেবাটি বড় ধরণের বিপদও এড়াতে পারে।

বৃদ্ধা অ্যাঞ্জেলার দরজায় একদিন কড়া নেড়েছিলেন রিকি, কিন্তু অ্যাঞ্জেলা দরজা খুলতে আসেননি, পরে রিকি আবিষ্কার করেন অ্যাঞ্জেলা ভেতরে পড়ে আছেন, অসুস্থ।

জার্সি পোস্টের অফিসে গিয়ে দেখা যায়, সেখানে হাজার হাজার চিঠি ও পার্সেল বিলি করার জন্য তৈরি করা হচ্ছে।

কিন্তু এই ব্যস্ততাটুকু বাদ দিলে ডাকে চিঠি পাঠানোর প্রবণতা মারাত্মক কমে যাওয়ারই নজির পাওয়া যাচ্ছে।

অনলাইনে কেনাকাটার জন্য পার্সেল সেবার হার বেড়েছে, কিন্তু চিঠি এখন বলতে গেলে অতীতের একটা বিষয়।

ফলে ডাক বিভাগগুলোকে সমসাময়িক থাকার জন্য নতুন নতুন সেবা আবিষ্কার করার প্রয়োজনীয়তা তৈরি হয়েছে।

নিউজিল্যান্ড পোস্ট সম্প্রতি কেন্টাকি ফ্রায়েড চিকেন পৌঁছে দেয়ার সেবা যুক্ত করেছে।

কিন্তু জার্সি পোস্টের কল অ্যান্ড চেকের ধারণাকে মনে হচ্ছে আরো বেশী কার্যকর।

কারণ অনেকেই এরই মধ্যে জার্সির এই উদাহরণ অনুসরণ করতে শুরু করেছে।

ফিনল্যান্ড, আইসল্যান্ড ও কিছু আমেরিকান শহরের ডাক বিভাগেও দেখা গেছে তারা কল অ্যান্ড চেকের নিজস্ব সংস্করণ চালু করেছে।

ঢাকারিপোর্টটোয়েন্টিফোর.কম/এইচএমএল

সর্বশেষ সংবাদ