বাংলা ফন্ট

বল টেম্পারিংয়ের চার মাস পর আসল কথা জানালো হ্যান্ডসকম্ব

28-07-2018
নিজস্ব প্রতিবেদক ঢাকারিপোর্টটোয়েন্টিফোর.কম

 বল টেম্পারিংয়ের চার মাস পর আসল কথা জানালো হ্যান্ডসকম্ব


ক্যানবেরা: কেপটাউন টেস্টে বল টেম্পারিং–কাণ্ডে পিটার হ্যান্ডসকম্বকে যেভাবে দেখানো হয়েছে, তা ভিডিও সম্পাদনার ফসল, দাবিটা করেছেন হ্যান্ডসকম্ব নিজেই। এত দিন পর আসল ঘটনা নিয়ে মুখ খুললেন অস্ট্রেলিয়ার এ ব্যাটসম্যান

বল টেম্পারিং–কাণ্ডে পিটার হ্যান্ডসকম্বের কোনো শাস্তি হয়নি। অস্ট্রেলিয়ার মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান ওই ম্যাচের একাদশেই ছিলেন না। তবে কেপটাউন টেস্টের ওই ঘটনা মনে করলেই হ্যান্ডসকম্বের চেহারাও ভেসে ওঠে।

ব্যানক্রফট কিছু একটা দিয়ে বল ঘষছেন। টেলিভিশনে তা দেখানোর পর অস্ট্রেলিয়ার কোচ ড্যারেন লেম্যান ওয়াকিটকিতে কথা বলছেন ডাগআউটে বসা দ্বাদশ খেলোয়াড় হ্যান্ডসকম্বের সঙ্গে। এরপর দেখা গেল, মাঠে টেম্পারিং–কাণ্ডের মূল কুশীলব ক্যামেরন ব্যানক্রফটের সঙ্গে কিছু একটা নিয়ে হাসছেন হ্যান্ডসকম্ব। ওই কাণ্ডের পর এই ভিডিওটা বারবার দেখানো হয়েছে টেলিভিশনে। আর তা দেখে মনে হয়েছে কোচের নির্দেশ পালন করে মাঠে ব্যানক্রফটকে কিছু পরামর্শ দিয়েছেন হ্যান্ডসকম্ব।

এত দিন পর কাল হ্যান্ডসকম্ব মুখ খুলেছেন সেই দিনের ঘটনা নিয়ে। বললেন, টেলিভিশনে তাকে যেভাবে দেখানো হয়েছে, তা ভিডিও ফুটেজ সম্পাদনার ফসল। হ্যান্ডসকম্বের দাবি, ২০ মিনিট আগে-পরের ফুটেজ জোড়া লাগিয়ে বানানো হয়েছিল ক্লিপটি, ‘ফুটেজটা আমার খুব পছন্দের, কারণ কত অবিশ্বাস্যভাবেই না এটাকে সম্পাদনা করা হয়েছে। দেখানো হলো আমি ওয়াকিটকিতে কথা বলছি, পরমুহূর্তেই দৌড়ে গিয়ে ক্যামের (ব্যানক্রফট) সঙ্গে কথা বলছি। আসল ঘটনা শুনুন, ওয়াকিটকিতে কথা বলার ২০-২৫ মিনিট পরে আমি মাঠে যাই। সেটাও এক খেলোয়াড়ের বাথরুম চেপেছিল বলে।’

ব্যানক্রফটের সঙ্গে কী নিয়ে হাসছিলেন, তার ব্যাখ্যাও দিলেন হ্যান্ডসকম্ব, ‘যেহেতু আমরা দুজনই শর্টে ফিল্ডিং করি, তাই পাশাপাশিই দাঁড়াতে হয়েছিল। সত্যি বলতে আমি শুধু তার সঙ্গে একটু মজা করছিলাম, এর বেশি কিছু নয়।’

তাহলে লেম্যান ওয়াকিটকিতে কী বলেছিলেন হ্যান্ডসকম্বকে? শুনুন তার মুখেই, ‘কোচ আমাকে জিজ্ঞেস করলেন, ওখানে হচ্ছেটা কী?’ কী হচ্ছে, তা বেশ ভালোভাবেই টের পেয়েছেন অস্ট্রেলীয়রা। বল টেম্পারিংয়ের ওই কাণ্ডে ব্যানক্রফটসহ নিষিদ্ধ হয়েছেন দলটি অধিনায়ক ও সহ-অধিনায়ক। পরে কোচের পদ থেকে সরে দাঁড়াতে হয়েছে লেম্যানকেও।

উল্লেখ্য, চলতি বছরের মার্চে কেপটাউন টেস্টে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সফররত অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক ডেভিড স্মিথ ও সহ অধিনায়ক বল টেম্পারিং করেন। যে কারণে তাদের দু’জনকেই নিষিদ্ধ হতে হয় জাতীয় দল থেকে।

ঢাকারিপোর্টটোয়েন্টিফোর.কম/এইএমএল


সর্বশেষ সংবাদ