বাংলা ফন্ট

রাম রহিমের পর এবার স্বামী সচ্চিদানন্দ

21-12-2017
নিজস্ব প্রতিবেদক ঢাকারিপোর্টটোয়েন্টিফোর.কম

 রাম রহিমের পর এবার স্বামী সচ্চিদানন্দ
ঢাকা: কথিত ধর্মগুরু রাম রহিমের পর এবার ভারতের উত্তরপ্রদেশের বাস্তি জেলার একটি আশ্রমের সাধু স্বামী সচ্চিদানন্দের বিরুদ্ধে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। ওই আশ্রমের চার নারী সাধ্বী স্থানীয় থানায় এ অভিযোগ করেছেন।
 
সাধ্বীদের অভিযোগ, আশ্রমের প্রধান স্বামী সচ্চিদানন্দসহ তিনজন সাধু মিলে ওই চার সাধ্বীকে দশ দিন ধরে আশ্রমের একটি নির্জন কক্ষে আটকে রেখে ধর্ষণ করেন। আর এ কাজে সহায়তা করতেন আশ্রমেরই কয়েকজন সাধ্বী। এই সাধুরা আশ্রমে মহন্ত নামে পরিচিত। ঘটনাটি জানাজানি হওয়ার পরপরই আত্মগোপনে গেছেন স্বামী সচ্চিদানন্দ ও তার দুই সহযোগী প্রচেতানন্দ ও বিশ্বানন্দ।
 
উত্তরপ্রদেশ রাজ্যের বাস্তি জেলার পুলিশ সুপার (এসপি) জানান, ওই দুই নারীর মেডিকেল পরীক্ষা করানো হয়েছে। তাদের শরীরের নানা ক্ষতচিহ্ন পাওয়া গেছে। পুলিশ বিষয়টি তদন্ত করছে। খবর দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।
 
ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, ২০০৮ সাল থেকে আশ্রমে থাকতেন ওই চার সাধ্বী। বেশ কিছুদিন ধরেই তাদের সঙ্গে স্বামী সচ্চিদানন্দসহ বাকি মহন্তরা যৌন সম্পর্ক স্থাপনের জন্য চাপ দিয়ে যাচ্ছিলেন। কিন্ত তারা ওই প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় কিছুদিন আগে সচ্চিদানন্দসহ তিন মহন্ত ওই সাধ্বীদের আশ্রমের একটি কক্ষে জোর করে আটকে রাখে। এরপর ১০ দিন ধরে একাধিকবার ওই সাধ্বীদের ধর্ষণ করা হয়।
 
গত মঙ্গলবার কোনোমতে আশ্রম থেকে পালিয়ে স্থানীয় থানায় গিয়ে অভিযোগ করেন ওই দুই নারী।  ওই নারীদের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, আশ্রমের কয়েকজন সাধ্বী বাইরে থেকে কিশোরী মেয়েদের নানা প্রলোভন দেখিয়ে আশ্রমে নিয়ে আসতেন। তারপর তাদের ওপর চালানো হতো শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন। প্রায় প্রতি রাতেই ধর্ষণ ও যৌন নির্যাতনের শিকার হতে হতো আশ্রমের সেবিকাদের। বাধা দিলে কখনো কখনো গণধর্ষণেরও শিকার হতেন তারা।
 
স্বামী সচ্চিদানন্দের অনেক শিষ্য দিল্লি, মুম্বাই, মধ্যপ্রদেশ, বিহার এবং ছত্রিশগড় ছড়িয়ে রয়েছে। এসব এলাকায় সচ্চিনান্দের ভক্তের সংখ্যায় প্রচুর। এর আগে গত ২৫ আগস্ট ভারতের আরেক ধর্মগুরু রাম রহিম ইনসানকে ধর্ষণের দায়ে গ্রেপ্তারের পর উত্তাল হয়ে উঠেছিল হরিয়ানার পাঁচকুলা ও সিরসা। এ সময় সংঘর্ষে হরিয়ানা ও পাঞ্জাব মিলিয়ে ৪১ জন প্রাণ হারিয়েছিল। রাম-রহিম সিং এখন রোহতক কারাগারে সাজা খাটছেন।

ঢাকারিপোর্টটোয়েন্টিফোর.কম/এইএমএল


সর্বশেষ সংবাদ