বাংলা ফন্ট

লাইনে পাথর ফেলে থামানো হলো 'ইঞ্জিনচ্যুত' পাগলা ট্রেন

09-04-2018
নিজস্ব প্রতিবেদক ঢাকারিপোর্টটোয়েন্টিফোর.কম

  লাইনে পাথর ফেলে থামানো হলো 'ইঞ্জিনচ্যুত' পাগলা ট্রেন
নিউজ ডেস্ক: ভারতে একটি ট্রেনের ২২টি বগি ইঞ্জিন থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাবার পর সেটা প্রায় এক হাজার যাত্রী নিয়ে নিজে নিজেই সাত মাইল চলার পর রেললাইনের ওপর পাথর ফেলে সেটাকে থামিয়েছেন কর্মকর্তারা।

ভারতের উড়িষ্যা রাজ্যের এ ঘটনার ভিডিও সামাজিক মাধ্যমে চাঞ্চল্য সৃষ্টি করেছে।

রাতের আহমেদাবাদ-পুরী এক্সপ্রেসে তখন হাজারদুয়েকের মতো যাত্রী। স্টেশনে ট্রেনটার ইঞ্জিন বদলানো হচ্ছিল যখন, তখনই আচমকা ইঞ্জিন ছাড়াই চলতে শুরু করে ট্রেনটা।

আর এক-আধ পা নয়, পাক্কা ১০ কিলোমিটার রাস্তা তীব্র বেগে চলতে থাকে ওই ট্রেনের ২২টা কামরা।

সাঁই সাঁই করে ট্রেনটা যখন একের পর এক স্টেশন পেরিয়ে যাচ্ছে, প্ল্যাটফর্মে লোকজন আঁতকে উঠে ট্রেনের যাত্রীদের উদ্দেশে চেঁচিয়ে বলতে থাকেন, "চেইন টানুন, চেইন টানুন!"

কিন্তু কে শোনে কার কথা। ট্রেনের ভেতরের যাত্রীরা অনেকে তো বুঝতেই পারেননি তাদের ট্রেন চলছে ইঞ্জিন ছাড়াই।

শনিবার রাতে এই বিচিত্র ঘটনার সাক্ষী থেকেছে ওড়িশার তিতলাগড় স্টেশন, যেখান থেকে ট্রেনটি আচমকা ছুটতে শুরু করে।

শেষ পর্যন্ত রেলওয়ে ট্র্যাকের ওপর পাথর ফেলে রেলকর্মীরা কোনওক্রমে ট্রেনটাকে থামান, রক্ষা পান ভেতরের যাত্রীরা।

ইঞ্জিন-ছাড়া ছুটন্ত সেই ট্রেনের ভিডিও ইতিমধ্যে ভাইরাল হয়ে গেছে, সোশ্যাল মিডিয়ার সুবাদে ছড়িয়ে পড়েছে সারা দেশে।

ভারতে রেলওয়ে বোর্ডের চেয়ারম্যান অশ্বিনী লোহানি দাবি করেছেন, "কর্মীদের গাফিলতির এটি একটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা।"

তবে সেই সঙ্গেই এই ঘটনাতে কর্তব্যে অবহেলার দায়ে সাতজন রেল কর্মকর্তাকে সাসপেন্ডও করা হয়েছে।

ঢাকারিপোর্টটোয়েন্টিফোর.কম/এইএমএল


 

সর্বশেষ সংবাদ